সোমবার   ০৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৩   মাঘ ২৪ ১৪২৯

শহরের খেয়াঘাট ওয়াকওয়ের পাশে পরে ছিল লাশ

যুগের চিন্তা রিপোর্ট

প্রকাশিত: ২১ ডিসেম্বর ২০২২  

 

শীতলক্ষ্যার তীরে রিপন নামে এক ব্যক্তির লাশ পাওয়া গেছে। সোমবার (১৯ ডিসেম্বর) রাত পৌনে ১২টার দিকে শহরের খেয়াঘাট থেকে এলাকা লাশটি উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ নৌ থানা পুলিশ। নিহত ব্যক্তি ৫৫ বছর বয়সী রিপন বলে জানা গেছে। সে বন্দর উপজেলার নবীগঞ্জ কদম রসূল কলেজ সংলগ্ন দক্ষিণ মাঠপাড়া এলাকার মৃত রমজান শেখের ছেলে।

 

নারায়ণগঞ্জ শহরের খেয়াঘাট ও টানবাজার ঘাট এলাকার মাঝামাঝি স্থানে ওয়াকওয়েতে নিহত রিপনকে মৃত অবস্থায় দেখতে পান স্থানীয়রা। পরে নারায়ণগঞ্জ নৌ থানা পুলিশকে খবর দিলে উপ-পরিদর্শক (এসআই) ফোরকান লাশটি উদ্ধার করেন। এসআই ফোরকান বলেন, ‘নিহত রিপনের মৃত্যু আপাতত আমরা স্বাভাবিক হিসেবে বিবেচনা করছি। পরিবারেরও কোন অভিযোগ নেই। বাকিটা ময়না তদন্তের পর জানা যাবে। অপমৃত্যুর মামলা হবে নাকি না, সেটা এখন বলতে পারছি না।’

 

ঘাটের পাশের অবস্থিত দোকানীরা জানান, ওয়াকওয়েতে রাতে নেশাগ্রস্থ মানুষের চলাচল বেশি। বেশ কিছু স্থানে মাদক বেচাকেনা হয়। অনেক সময় মাদক সেবীরা ছিনতাই করে। দুপুর ১২টা পর্যন্ত লাশ নারায়ণগঞ্জ নৌ-থানা প্রাঙ্গণে ছিল। চলছিল ময়নাতদন্তের জন্য নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে প্রেরণের প্রস্তুতি।

 

পাশেই বসা ছিল নিহত রিপনের ভাতিজা আল-আমিন। আল-আমিন জানান, ‘তার চাচা নেশাগ্রস্থ ছিল। বন্দর ঘাট এলাকাতে লেবারের (শ্রমিক) কাজ করে ঘাটেই থাকতেন। শরীরে কোন আঘাতের চিহ্ন নেই শুধু নাক দিয়ে একটু রক্ত বের হতে দেখা গেছে। আমরা ধারণা করছি, রাতে তিনি স্টোক করেছেন।’

এই বিভাগের আরো খবর