মঙ্গলবার   ০৫ জুলাই ২০২২   আষাঢ় ২১ ১৪২৯

স্বামীকে সিগারেট দিতে স্ত্রীর নিষেধ, দোকানদারের ভাঙচুর

সিদ্ধিরগঞ্জ প্রতিনিধি

প্রকাশিত: ২২ জুন ২০২২  

হার্টের রোগী হওয়ায় স্বামীর কাছে সিগারেট বিক্রি করতে দোকানদারকে নিষেধ করেন স্ত্রী। এর জেরে লোকজন নিয়ে ঐ স্বামী-স্ত্রীর বসত বাড়িতে ভাঙচুর চালায় দোকানদার। এ ঘটনায় উভয়পক্ষই থানায় পাল্টাপাল্টি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে। তবে দোকানদার তার অভিযোগে উল্লেখ করেন বাকি টাকাকে কেন্দ্র করে তাকে মারধর করেছে ঐ স্বামী-স্ত্রী এবং শ্যালক। 

 

ঘটনাটি ঘটেছে নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জ থানাধীন জালকুড়ি দক্ষিণপাড়া এলাকায়। খোঁজ নিয়ে জানা যায়, গত ১৮ জুন শনিবার বিকেলে লুকিয়ে দোকানে সিগারেট টানতে গেলে স্ত্রীও টের পেয়ে পেছন পেছন গিয়ে তার স্বামীর কাছে সিগারেট বিক্রি করায় দোকানদারের সাথে রাগারাগি করেন এবং তার স্বামীর কাছে দোকানদেরকে সিগারেট বিক্রি করতে নিষেধ করেন। 

 

কারণ, হার্টে ব্লক ধরা পড়ায় অপারেশনের মাধ্যমে তিনটি রিং স্থাপনসহ চিকিৎসা নিয়ে এর একদিন আগেই গত ১৭ জুন শুক্রবার বাড়ি ফেরেন রনি দেওয়ান। এ অবস্থায় সিগারেট ঝুঁকিপূর্ণ জেনে স্ত্রী পূর্বেই তার স্বামীর কাছে দোকানদার মো. জাকির হোসেনকে সিগারেট বিক্রি করতে নিষেধ করেন। নিষেধ করার পরও তার স্বামীকে সিগারেট দেওয়ায় ঐ দোকানদারের সাথে রেগে ওঠেন স্ত্রী সেলি বেগম। তার এমন রাগ দেখে পাল্টা দোকানদারও চটে যান এবং চড়াও হয় সেলি বেগমের উপর।

 

রনি দেওয়ান বলেন, আমি লুকিয়ে দোকানে গিয়ে সিগারেট জ¦ালানোয় আমার স্ত্রী দোকানদারের সাথে রাগারাগি করে। আমি এর জন্য দোকানদারের কাছে হাত জোড় ক্ষমা চাই এবং আমার স্ত্রীকে বাসায় নিয়ে আসার চেষ্টা করি। কিন্তু দোকানদার জাকির হোসেন আমার স্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে নানা ধরনের অকথ্য ও অশালীন ভাষায় কথা বলে।

 

 এ বিষয়কে কেন্দ্র করে সামান্য ধাক্কাধাক্কি হয়। পরে আমরা বাসায় চলে আসার পর দোকানদার একাধিক লোকজন এনে রাস্তায় দাড়িয়ে আমাকে উদ্দেশ্য করে গালমন্দ ও হুমকি প্রদান করে। এসময় তারা আমার বাড়ির নিচতলার জানালার থাই গ্লাস ভাঙচুর করে। যার নেতৃত্ব দেয় নাসিক ৯নং ওয়ার্ড বিএনপির সাধারণ সম্পাদক রাকিবুল, জামান ও দোকানদার জাকির হোসেন।

 

এ ঘটনায় ভুক্তভোগী রনি দেওয়ান ও তার স্ত্রী সিদ্ধিরগঞ্জ থানায় লিখিত অভিযোগ দিলে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সিদ্ধিরগঞ্জ থানার উপ-পরিদর্শক মো. আসাদ সবুজ। তিনি জানান, আমি ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। অভিযোগকারীর বসতবাড়ির জানালার কাঁচ ভাঙা পেয়েছি। কারা ভেঙেছে, বিষয়টি এখনও তদন্তাধীন রয়েছে। এসএম/জেসি 
 

এই বিভাগের আরো খবর