শনিবার   ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১   আশ্বিন ২ ১৪২৮

২৩ নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের কর্মী সভা অনুষ্ঠিত

যুগের চিন্তা অনলাইন

প্রকাশিত: ১৪ সেপ্টেম্বর ২০২১  

নারায়ণগঞ্জ-৪ আসনের সাংসদ একেএম শামীম ওসমানের ডাকা কর্মী সভা সফল করার লক্ষ্যে নাসিক ২৩নং ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের উদ্যোগে কর্মী সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

 


মঙ্গলবার (১৪ সেপ্টেম্বর) বিকেলে বন্দরের পৌরসভা মোড় এলাকায় মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারন সম্পাদক ও ২৩নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাইফুদ্দিন আহমেদ দুলাল প্রধানের সভাপতিত্বে এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক এড. খোকন সাহা।

 

তিনি বলেন, আমার মহানগর আওয়ামীলীগের কমিটিতে শামীম ওসমান ১নং সদস্য। শামীম ওসমান যখন মনে করলেন খোকন সাহার মতো নেতৃত্ব আসা দরকার।  দলের নেত্রীর সাথে আলোচনা করে অনুরোধ করলেন আপা খোকন সাহার হাতে নেতৃত্ব দেয়া উচিত। শামীম ওসমান কিন্তু হয় নাই। নেতৃত্ব চান নাই। তিনি জুয়েল ও দুলালের মতো মেধাবী নেতাদের দিয়ে স্বেচ্ছাসেবকলীগ গঠন করেছেন। নিজের কোন আত্মীয় স্বজনকে পদ দেন নাই। এটাই হচ্ছে শামীম ওসমান। শামীম ওসমান নিজেই একটি ইনস্টিটিউট। আওয়ামীলীগের কর্মী তৈরী করার কারিগর হচ্ছেন শামীম ওসমান। এটা আমাদের মনে রাখতে হবে। 

 


খোকন সাহা আরো বলেন, আমার জানা মতে কয়েকবার মন্ত্রীত্বের অফার দেয়া হয়েছিলো শামীম ওসমানকে। সে মন্ত্রীত্ব গ্রহন করেন নাই। নিরবে নিভৃতে দলকে সু-সংগঠিত করার কাজ করেছেন। খালেদা জিয়া যখন, দেশ থেকে শামীম ওসমানকে বিতাড়িত করলেন, বিদেশ থেকে আমাদের নির্দেশনা দিয়ে কাজ করিয়েছেন এই শামীম ওসমান। এই নগরীতে যতো উন্নয়ন হয়েছে এই অবদান কার? শেখ হাসিনার অবদান। শেখ হাসিনা ক্ষমতায় আছেন বলে ফান্ড দেন। একনেক থেকে টাকা দেন, জাইকা টাকা দেন এবং বিশ্ব ব্যাংক ঋণ দেন। অনেকে বলেন, আমি রাস্তাটা করে দিলাম। আমিত্ব ভাবটা বাদ দেন। উন্নয়ন করতে হলে শামীম ওসমান ও সেলিম ওসমানকে অনুসরন করুন। তাদের মধ্যে আমিত্বেরভাব নাই। 

 


সভাপত্বির বক্তব্যে দুলাল প্রধান বলেন, কিছুদিন আগে ইউটিউবে দেখলাম কোন এক সাবেক সাংবাদিক নেতা আমার গুরু এবং রাজনৈতিক নেতা একেএম শামীম ওসমানকে চ্যালেঞ্জ করেছেন। আমি তাকে বলতে চাই, শামীম ওসমানের একজন ক্ষুদ্রকর্মী হিসেবে আপনার চ্যালেঞ্জ আমি গ্রহন করলাম। নেতাকে পড়ে আগে কর্মীদের সামলান। আপনি কি করতে পারেন, আমরা দেখবো। আপনাকে রাজনৈতিকভাবেই প্রতিহত করবো। জননেত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের ধারাবাহিকতা চলছে এবং চলবে। কোন ষড়যন্ত্রই তা রুখতে পারবে না। 

 


এসময় কর্মী সভায় আরো উপস্থিত ছিলেন, মহানগর মহিলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ইসরাত জাহান খান স্মৃতি, মহানগর আওয়ামীলীগ নেতা হুমায়ুন কবীর মৃধা, মহানগর আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগের সভাপতি মোঃ জুয়েল হোসেন, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুর রহমান কমল, মহানগর ছাত্রলীগের সভাপতি হাবিবুর রহমান রিয়াদ ও মহানগর ছাত্রলীগ নেতা অনিক তালুকদার অপু প্রমুখ। 
 

এই বিভাগের আরো খবর