বৃহস্পতিবার   ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪   ফাল্গুন ১০ ১৪৩০

ফতুল্লায় পোশাক কারখানায় গ্যাস পাইপলাইন বিস্ফোরণ, দগ্ধ ১৪

যুগের চিন্তা রিপোর্ট

প্রকাশিত: ৯ ফেব্রুয়ারি ২০২৪  

 

ফতুল্লায় একটি রপ্তানিমুখী একটি পোশাক কারখানায় গ্যাস পাইপলাইন বিস্ফোরণে ১৪ জন দগ্ধ হয়েছেন। গতকাল বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) বেলা সাড়ে ৩টায় ফতুল্লা কাশিপুর হাটখোলা ‘ক্রোনি এ্যাপারেলসে’ ওই দুর্ঘটনা ঘটে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটের আবাসিক চিকিৎসক মো. তরিকুল ইসলাম।

 

বিস্ফোরণে দগ্ধরা হলেন- মেহেদী হাসান (৩০), জাকির (২৬), কামরুল (৪০), মাহবুব (৩০), শফিক (২৮), সিকিউরিটি মনির (২৮), সামচু (৩২), রিপন (৩৪), রুবেল মিয়া (১৯), জিতু (৪০), পলাশকান্তি (৪২), মুকুল (৪২), মিঠুন (২৫) ও মুকুল (৪০)।

 

কামরুল হাসান নামে দগ্ধ এক ওয়েল্ডিং মিস্ত্রি জানান, তারা কয়েকজন মিস্ত্রি কারখানার ভেতর গেটের পাশে সিলিন্ডারের গ্যাস ব্যবহার করে ওয়েল্ডিংয়ের কাজ করছিলেন। তখনই ওই সিলিন্ডারের সেই পাইপ ফেটে বিস্ফোরণ ঘটে। এতে হঠাৎ আগুন ধরে যায় এবং মুহূর্তেই আবার সেই আগুন নিভে যায়। তবে সেখান দিয়ে যাতায়াত করা কারখানাটির বিভিন্ন কর্মচারীরা সামান্য দগ্ধ হন।

 

পোশাক তৈরি কারখানাটির অডিট কর্মকর্তা মো. সাব্বির হোসেন জানান, ঘটনার পরপরই দগ্ধদের দ্রুত বার্ন ইনস্টিটিউটে আনা হয়েছে। সবাই কারখানাটির বিভিন্ন সেকশনে কাজ করেন।

 

বার্ন ইউনিটের আবাসিক চিকিৎসক মো. তরিকুল ইসলাম জানান, নারায়ণগঞ্জের একটি পোশাক কারখানায় গ্যাস পাইপলাইন বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এদের মধ্যে ১৪ জন দগ্ধ হয়ে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি হয়েছেন। এদের মধ্যে ১৩ জন শঙ্কামুক্ত আছেন। তবে একজনকে আমরা পর্যবেক্ষণের জন্য বার্ন ইউনিটে ভর্তি করেছি। তার নাম জিতু (৪০), তিনি ৩০ ভাগ দগ্ধ হয়েছেন। তিনি ওই পোশাক কারখানার শ্রমিক বলে প্রাথমিক অবস্থায় জানতে পেরেছি। এস.এ/জেসি
 

এই বিভাগের আরো খবর